শনিবার, ৩০ মে ২০২০

English Version

পরিবেশ দূষণ নিয়ন্ত্রণে সহায়তা করতে চায় বিশ্বব্যাংক

No icon আমার পরিবেশ

স্বাস্থ্য ডেস্ক: ১৬ জানুয়ারি’২০: বিশ্বব্যাংকের কান্ট্রি ডিরেক্টর (বাংলাদেশ-ভুটান) মার্সি টেম্বন বলেছেন, পরিবেশ দূষণ নিয়ন্ত্রণ ও বন ব্যবস্থাপনায় বিশ্বব্যাংকের সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে। তিনি বলেন, বাংলাদেশ বিভিন্ন ক্ষেত্রে দ্রুততার সঙ্গে উন্নয়ন করছে। কিন্তু প্লাস্টিক, পলিথিন দূষণসহ সার্বিক পরিবেশ দূষণ বাংলাদেশের সামগ্রিক অর্থনৈতিক উন্নয়ন বাধাগ্রস্ত করছে। এজন্য পরিবেশ দূষণ নিয়ন্ত্রণে বিশ্বব্যাংক বাংলাদেশের সঙ্গে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করতে চায়।

বুধবার বিকালে সচিবালয়ে মন্ত্রণালয়ের নিজ পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিনের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎকালে বিশ্বব্যাংকের কান্ট্রি ডিরেক্টর এসব কথা বলেন। তারা বাস্তবায়নাধীন ‘টেকসই বন ও জীবিকা (সুফল)’ প্রকল্পসহ বিভিন্ন নতুন প্রকল্পে বিশ্বব্যাংকের সহযোগিতার বিষয়ে আলোচনা করেন।

বাংলাদেশে দূষণ নিয়ন্ত্রণ, পরিবীক্ষণ ও প্রাতিষ্ঠানিক সক্ষমতা বৃদ্ধিতে বিশ্বব্যাংকের সহযোগিতা করার আগ্রহ ব্যক্ত করায় পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী বিশ্বব্যাংকের কান্ট্রি ডিরেক্টরকে ধন্যবাদ জানান।

পরিবেশ মন্ত্রী বলেন, বায়ু, শব্দ দূষণসহ সকল প্রকার দূষণ রোধ ও অধিক পরিমাণে বৃক্ষরোপণে বর্তমান সরকার আন্তরিকভাবে কাজ করছে। এক্ষেত্রে বিশ্বব্যাংকসহ অন্যান্য উন্নয়ন সহযোগীদের সহায়তা পেলে বাংলাদেশে দূষণ নিয়ন্ত্রণ কার্যক্রম আরো জোরদার হবে। মন্ত্রী ভবিষ্যতে এ ধরনের পারস্পরিক আলোচনা চালিয়ে যাওয়ার আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন- পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের উপমন্ত্রী হাবিবুন নাহার, সচিব জিয়াউল হাসান এনডিসি, অতিরিক্ত সচিব ড. এস. এম. মনজুরুল হান্নান ও মাহমুদ হাসান, বন অধিদফতরের প্রধান বন সংরক্ষক শফিউল আলম চৌধুরী, পরিবেশ অধিদফতরের মহাপরিচালক ড. এ.কে.এম রফিক আহাম্মদ এবং বিশ্বব্যাংকের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ।

সর্বাধিক পঠিত খবর




করোনার বিরুদ্ধে একা লড়াই