সোমবার, ০৬ এপ্রিল ২০২০

English Version

আজ থেকে ঢাকার ১৬ ওয়ার্ডে কলেরার টিকা দেয়া শুরু

বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীর ক্ষণগণনা
৬৪দিন
:
১১ঘণ্টা
:
৩৯মিনিট
:
৫৬সেকেন্ড
No icon সুসংবাদ

স্বাস্থ্য ডেস্ক- ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০: দেশে ডায়রিয়াজনিত রোগীদের কমপক্ষে ২০ শতাংশই কলেরায় আক্রান্ত থাকে। আর ঢাকায় সবচেয়ে বেশি কলেরাপ্রবণ এলাকা মোহাম্মদপুর। আজ বুধবার ঢাকার ছয়টি থানার আওতাধীন ১৬টি ওয়ার্ডে শুরু হচ্ছে ভ্যাকসিন (টিকা) খাওয়ানো কার্যক্রম। এক বছর বয়সের ঊর্ধ্বে সবার জন্য এ টিকা প্রযোজ্য। ২৫ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত চলবে। মঙ্গলবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের কনফারেন্স রুমে রোগনিয়ন্ত্রণ শাখার আয়োজনে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে এসব তথ্য জানানো হয়েছে।

সাংবাদিকদের অবহিত করেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক (রোগ নিয়ন্ত্রণ) অধ্যাপক ডা. শাহনীলা ফেরদৌসী ও আইসিডিডিআরবির ইমেরিটাস সায়েন্টিস্ট ড. ফেরদৌসী কাদরী। তাঁরা দেশে কলেরার প্রকোপ বিষয়ে বিভিন্ন তথ্য-উপাত্ত তুলে ধরেন।

ডা. শাহনীলা ফেরদৌসী জানান, ঢাকার মোহাম্মদপুর, হাজারীবাগ, লালবাগ, কামরাঙ্গীর চর, দারুস সালাম, আদাবর থানার মোট ১৬টি ওয়ার্ডে এ ক্যাম্পেইনের আওতায় আজ থেকে একযোগে কলেরার টিকা খাওয়ানো হবে।

ড. ফেরদৌসী কাদরী বলেন, দেশে কলেরার প্রাদুর্ভাব আছে। তাই এটি এখন আর লুকোছাপার কিছু নেই। বরং ২০৩০ সালের মধ্যে দেশকে কলেরামুক্ত করাই এখন বড় চ্যালেঞ্জ। সবাইকে মিলে এই কাজে সফল হতে হবে। তিনি আরো বলেন, আইসিডিডিআরবির সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হয়ে যারা মহাখালী কলেরা হাসপাতালে আসে তাদের প্রতি এক হাজার রোগীর মধ্যে মোহাম্মদপুর এলাকার ৪.৯ শতাংশ, আদাবর এলাকার ১.৩ শতাংশ, দারুস সালাম এলাকার দশমিক ৩ শতাংশ, লালবাগ এলাকার ২.১ শতাংশ, কামরাঙ্গীর চর এলাকার ১.৫ শতাংশ, হাজারীবাগ এলাকার ১.৭ শতাংশ রোগী কলেরায় আক্রান্ত।

সর্বশেষ খবর

সর্বাধিক পঠিত খবর





চীনের পাঠানো চিকিৎসা সরঞ্জাম আসছে আজ