বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০১৯

English Version

ডেন্টিস্টরা অযথা অ্যান্টিবায়োটিক লেখেন ৮০%

No icon ফার্মাসিউটিক্যালস

স্বাস্থ্য ডেস্ক: ০৩ জুন’ ১৯: দন্ত চিকিৎসকরা (ডেন্টিস্ট) রোগীদের জন্য তাঁদের ব্যবস্থাপত্রে (প্রেসক্রিপশন) যত অ্যান্টিবায়োটিক লেখেন, তার ৮০ শতাংশই অপ্রয়োজনীয়। এটা কারো মনগড়া তথ্য নয়। যুক্তরাষ্ট্রে পরিচালিত এক গবেষণায় উঠে এসেছে এমন চিত্র।

গবেষণাটি করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের শিকাগোর একদল গবেষক। তাঁদের গবেষণা প্রতিবেদনটি ছাপা হয়েছে ‘জামা নেটওয়ার্ক’ সাময়িকীতে।

গবেষকরা বলছেন, যুক্তরাষ্ট্রে চিকিৎসাশাস্ত্রের বিভিন্ন বিভাগে যত অ্যান্টিবায়োটিক ব্যবহার হয়ে থাকে, তার ১০ শতাংশই লেখেন দাঁতের চিকিৎসকরা। চিকিৎসাশাস্ত্রের আর কোনো বিভাগের চিকিৎসকরা তাঁদের ব্যবস্থাপত্রে এত পরিমাণ অ্যান্টিবায়োটিক লেখেন না।

গবেষকরা হিসাব করে দেখেছেন, যুক্তরাষ্ট্রের সব বিভাগের চিকিৎসকরা প্রতিবছর ২৬ কোটি ৬০ লাখ (কোর্স) অ্যান্টিবায়োটিক লিখে থাকেন। এর মধ্যে দুই কোটি ৬৬ লাখ লেখেন দাঁতের চিকিৎসকরা। কিন্তু গবেষণায় দেখা গেছে, এই দুই কোটি ৬৬ লাখের মধ্যে ৮০ শতাংশই অপ্রয়োজনীয়। অর্থাৎ এই ওষুধ না লিখলে রোগীর কোনো সমস্যাই হতো না।

চিকিৎসাশাস্ত্রের কোন কোন বিভাগে কী কারণে কী পরিমাণ অ্যান্টিবায়োটিক লেখা হয় এবং কোনগুলো না লিখলেও চলে, তা অনুসন্ধান করতেই গবেষণাটি করা হয়। গবেষকরা বলছেন, এভাবে অ্যান্টিবায়োটিকের ব্যবহার বাড়তে থাকলে একসময় মানুষ কিংবা ওষুধের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা একেবারে তলানিতে ঠেকবে।

গবেষকরা জানান, বিশ্বের অনেক দেশই অ্যান্টিবায়োটিকের ব্যবহার কমাতে চাইছে, কিন্তু বাস্তবতা হলো, এখন পর্যন্ত ইতিবাচক কোনো পরিবর্তন ঘটেনি। সূত্র : ডেইলি মেইল।

সর্বাধিক পঠিত খবর

জয়েন্টে ব্যথা বাড়ায় যে ৩ খাবার




লিচু খাওয়ার পর ভারতে ৫৩ শিশুর মৃত্যু

ডায়াবেটিস দূরে রাখতে খান জাম