শনিবার, ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২০

English Version

অ্যাপ জানাবে ওষুধের আদ্যোপান্ত

বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীর ক্ষণগণনা
৬৪দিন
:
১১ঘণ্টা
:
৩৯মিনিট
:
৫৬সেকেন্ড
No icon ফার্মাসিউটিক্যালস

স্বাস্থ্য ডেস্ক: ১৭ আগস্ট’ ১৯: অনেক সময় দেখা যায়, কোনো একটি ওষুধ না পাওয়া গেলে তার পরিবর্তে ভিন্ন কোম্পানির একই ওষুধ নিতে পরামর্শ দেয় ফার্মেসিগুলো। কিন্তু বিকল্প ওষুধটি ঠিক কিনা তা নিয়ে দ্বিধায় পড়তে হয়। অনেক সময় ভুল ওষুধও দিয়ে থাকেন অনেকে। এমন সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে ফোনে ইনস্টল করে রাখতে পারে ডিআইএমএস অ্যাপটি।

ডিআইএমএস অ্যাপটির পূর্ণ নাম ‘ড্রাগ ইনফরমেশন ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম’। ওষুধের রেফারেন্সের জন্য বাংলাদেশের প্রিমিয়ার মোবাইল ড্রাগ ইনডেক্স অ্যাপস এটি।

অ্যাপটিতে রয়েছে ওষুধের বিস্তারিত সবকিছু। যেখানে পাওয়া যাবে সেটার ব্যবহার নির্দেশিকা, ডোজ, পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া, সতর্কতা। এছাড়াও রয়েছে এফডিএ প্রেগনেন্সি ক্যাটেগরি, থেরাপি ক্লাস, প্যাক সাইজ এবং দাম।

অ্যাপটির মাধ্যমে ওষুধ সার্চ করার অপশন রয়েছে। যেখানে নাম, ব্র্যান্ডের নাম দিয়েও সার্চ করা যাবে।

এ থেকে জেড পর্যন্ত অক্ষর দিয়ে ওষুধের নাম রয়েছে। ক্লাস ভেদে ওষুধের বিবরণ ও নাম রয়েছে। এবং অবস্থা ভেদেও রয়েছে নাম। বেশি ব্যবহৃত ওষুধগুলোও রয়েছে বুকমার্ক করা। যেখানে ব্র্যান্ডের নাম লেখা আছে।

আসলে দেশের সকল মেডিসিন কোম্পানির ওষুধ সম্পর্কে জানাবে এই অ্যাপ। অ্যাপটিতে ওষুধের ব্র্যান্ড, জেনেরিক নাম এবং ওষুধের নির্দেশিকা রয়েছে। ডাক্তার, নার্স এবং মেডিকেল রিপ্রেজেন্টেটিভদের কাছে অ্যাপটি বেশ জনপ্রিয়।

অ্যাপটিতে বিভিন্ন ব্র্যান্ড, ওষুধের ধরন অনুযায়ী বিভাগ করে বিভিন্ন ওষুধের তথ্য রয়েছে। চাইলে পছন্দের ওষুধটি প্রিয় তালিকায় যুক্ত করা যাবে। তারপর সেখান থেকে পরবর্তী সময়ে ওষুধটি সম্পর্কে দেখা যাবে।

মেডিকেল বা স্বাস্থ্য সংক্রান্ত নানা অনুষ্ঠানের খবর পাওয়া যাবে অ্যাপটিতে। ব্যবহারকারীরা যেন অ্যাপটিতে নিজেদের ফিডব্যাক দিতে পারেন সেই সুবিধা রয়েছে এতে।

প্রতি মুহূর্তে আসা নতুন ওষুধের তথ্য যোগ হচ্ছে অ্যাপটির ডেটাবেইসে। এতে ২০ হাজারের বেশি ব্র্যান্ড এবং ১৪০০টির বেশি জেনেরিক ওষুধ রয়েছে। অফলাইনেও কাজ করবে অ্যাপটি। এছাড়া অ্যাপের ইউজার ইন্টারফেইস সুন্দর ও সহজ।

সর্বাধিক পঠিত খবর






করোনার ওষুধ আবিষ্কার, বাজারে ছাড়ার অনুমতি

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে করণীয়

মোবাইল থেকেও ছড়াতে পারে করোনাভাইরাস!

ধূমপান ছাড়লে সেরে ওঠে ফুসফুস