বৃহস্পতিবার, ১৯ অক্টোবর ২০১৭

English Version

ঢাকায় চিকুনগুনিয়া প্রতিরোধে বিশেষ অভিযান

No icon ফার্মাসিউটিক্যালস

স্বাস্থ্য ডেস্ক: ১৬ জুন ২০১৭: চিকুনগুনিয়া নিয়ে উদ্বেগ ও উৎকণ্ঠার মুখে শনিবার ঢাকায় নজিরবিহীন অভিযান চালাবে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়। মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়, সব মেডিক্যাল কলেজ, ডেন্টাল কলেজ, নার্সিং কলেজ ও ইনস্টিটিউট, হেলথ টেকনোলজি ইনস্টিটিউটসহ সব ধরনের স্বাস্থ্য শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থী, সব পর্যায়ের স্বাস্থ্য ও চিকিত্সাপ্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-কর্মচারী একযোগে অংশ নেবেন এ অভিযানে।

সঙ্গে থাকবেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তর ও সিটি করপোরেশনের প্রতিনিধিরা। এর আওতায় শনিবার সকাল ৯টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত ঢাকার ৯২টি পয়েন্টে একটি করে টিমের সদস্যরা ভাগ হয়ে একাধারে সচেতনতামূলক প্রচারণা চালাবেন এবং এডিস মশা নিধনের জন্য মশার উৎপত্তিস্থল ধ্বংস করবে ও ওষুধ ছিটাবে।

এ উপলক্ষে বৃহস্পতিবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ বলেন, এডিস মশা থেকেই চিকুনগুনিয়া ছড়ায়। পাশাপাশি ডেঙ্গু ও জিকা ভাইরাসও ছড়ায় এই এডিস মশা থেকে। তাই এই মশা নির্মূল করা না গেলে এসব রোগের ঝুঁকি থেকেই যাবে। সবার মাঝেই সচেতনতা জাগাতে হবে। নিজ নিজ ঘরবাড়ি ও প্রতিষ্ঠানকে এডিস মশামুক্ত করতে হবে। ২০ হাজারের বেশি চিকিত্সা শিক্ষার্থী নিয়ে এমন সামাজিক আন্দোলনমূলক অভিযান দেশে এটাই প্রথম। মহাপরিচালক বলেন, শনিবার কেবল প্রচারণাই নয়, চিকুনগুনিয়া রোগ নির্ণয় করা হবে এবং সিটি করপোরেশনের সহায়তায় মশার ওষুধ ছিটানো হবে।

অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য দেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক (রোগ নিয়ন্ত্রণ) অধ্যাপক ডা. সানিয়া তাহমিনা, পরিচালক (শিক্ষা) অধ্যাপক ডা. আব্দুর রশিদ, আইইডিসিআরের পরিচালক মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বলেন, চিকুনগুনিয়ার জন্য কোনো পরীক্ষার দরকার নেই। দেশে একমাত্র আইইডিসিআর ছাড়া আর কোথাও এই ভাইরাস শনাক্তকরণের কার্যকর কোনো প্রযুক্তি নেই। যেগুলো দিয়ে পরীক্ষার কথা বলা হয় সেগুলোতে ওই ভাইরাস নিশ্চিতভাবে শনাক্ত করা সম্ভব নয়। যেসব প্রতিষ্ঠান চিকুনগুনিয়া শনাক্তকরণের কথা বলে মানুষের কাছ থেকে টাকা নিচ্ছে তারা অন্যায় করছে।

ব্রিফিংয়ে এক তথ্যে জানানো হয়, গতকাল পর্যন্ত দেশে এক হাজার ৪০০ চিকুনগুনিয়া আক্রান্ত রোগী বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিত্সা নিয়েছে। তবে এ তথ্য সব হাসপাতালের নয়। এ ছাড়া হাসপাতালে না আসা চিকুনগুনিয়ায় আক্রান্ত রোগীরাও এই হিসাবের বাইরে রয়েছে।

সর্বাধিক পঠিত খবর



দেশের স্বাস্থ্যসেবায় নীরব বিপ্লব হয়েছে-

লিভারে চর্বি কমানোর উপায়

আপনি কিডনি রোগে আক্রান্ত নয় তো?


হার্টের কর্মক্ষমতা বাড়াতে জেনে নিন

কিভাবে বুঝবেন কিডনিতে পাথর হয়েছে


ব্রেন টিউমারের লক্ষণ এড়িয়ে যাচ্ছেন না তো?